Author Topic: Health Benefit of Potatoes  (Read 311 times)

Offline najim

  • Full Member
  • ***
  • Posts: 152
    • View Profile
Health Benefit of Potatoes
« on: December 11, 2013, 11:59:04 AM »


যে ৫টি কারণে আলু খাবেন প্রতিদিন!



আলু খেতে ভালোবাসেন না এমন মানুষ হয়তো পাওয়া যাবে না। সকালে নাস্তায় আলু ভাজি, দুপুরে আলু ভর্তা আর রাতে আলু দিয়ে মাংসের ঝোল না খেলে যেন চলেই না। এছাড়াও আলুপুরি, আলুর সিঙ্গারা ইত্যাদি তো বিকেল বেলা খাওয়াই হয়। আলুর দামও কম এবং বেশ সহজলভ্য বলে সব ধরণের মানুষেরই হাতের নাগালের মধ্যেই আছে এই সবজিটি। আলুর স্বাদের পাশাপাশি আছে অনেক গুনও।

প্রতি ১০০ গ্রাম আলুতে আছে প্রায় ৯৬ কিলোক্যালরি। ৬০ গ্রাম আলু ভাজিতে প্রায় ২৩৫ কিলোক্যালরি এবং ৪০ গ্রাম আলুর চিপসে প্রায় ২০৫ কিলোক্যালরি আছে। আলুতে স্বল্প পরিমাণে ভিটামিন ‘এ', ‘বি' ও ‘সি' আছে। আলুর খোসাও বেশ উপকারী। আলুর খোসাতে ভিটামিন 'এ' , পটাশিয়াম, আয়রন, অ্যান্টি-অক্সাইড, ফাইবার সহ প্রচুর পরিমানে কার্বোহাইড্রেট রয়েছে।

আসুন জেনে নেয়া আলুর ৫টি উপকারিতা।
ভিটামিনের উৎস

ঊনবিংশ শতাব্দিতে স্পানিশ নাবিকরা যখন লম্বা সফরে যেতো তখন ভিটামিন সি এর অভাবে স্কার্ভি রোগে আক্রান্ত হতো অনেকেই। পরবর্তিতে তারা স্কার্ভি রোগ থেকে মুক্তি পাওয়ার জন্য প্রচুর আলু নিয়ে যেত সঙ্গে করে। আলুতে রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বৃদ্ধিতে সহায়ক ভিটামিন সি আছে প্রচুর পরিমাণে। একটি মাঝারী আকৃতির (১৫০গ্রাম) আলুর ত্বকে আছে ২৭ মিলিগ্রাম ভিটামিন সি যারা সারাদিনের চাহিদার প্রায় অর্ধেক। এছাড়াও আলুতে ভিটামিন বি, ফলেট, পটাসিয়াম, ম্যাগনেসিয়াম ও আয়রন আছে। তাই কম খরচের ভিটামিনের উৎস হিসেবে আলুর তুলনা নেই।
রক্তচাপ নিয়ন্ত্রণ

নরউইচের ইন্সটিটিউট অফ ফুড রিসার্চের গবেষকরা আলুতে রক্তচাপ নিয়ন্ত্রণকারী উপাদান কুকোয়ামাইন পেয়েছেন। প্রাচীন কালে চীনে রক্তচাপ নিয়ন্ত্রনের ওষুধ হিসেবে যেই চা পান করা হতো সেটার মূল উপাদানও চিলো কুকোয়ামাইন। তাই প্রতিদিন পরিমিত পরিমাণে আলু খেলে রক্তচাপ কিছুটা নিয়ন্ত্রণে থাকবে। তবে অতিরিক্ত আলু খেলে শরীর মুটিয়ে যায় এবং রক্তে চিনির পরিমাণ বেড়ে যায়।
মানসিক চাপ কমাতে

আলুতে আছে প্রচুর পরিমাণে ভিটামিন বি-৬, যা মানসিক চাপ কমিয়ে মন ভালো করতে সহায়তা করে। মাত্র ১০০ গ্রাম সেদ্ধ আলু থেকে সারাদিন মন ভালো রাখার জন্য প্রয়োজনীয় ভিটামিন পাওয়া যায়। নিওট্রান্সমিটার মস্তিষ্কে অনুভূতি আদান প্রদান করে থাকে। ভিটামিন বি-৬ মন ভালো রাখার জন্য কার্যকরী দুটি উপাদান সেরেটোনিন ও ডোপামিন নামক নিওট্রান্সমিটার গঠনে সহায়তা করে।
মস্তিষ্কের কর্মক্ষমতা বাড়াতে

মস্তিষ্ক সচল ও কর্মক্ষম রাখার জন্য প্রয়োজন নিয়ন্ত্রিত গ্লুকোজ, অক্সিজেন, ভিটামিন বি কমপ্লেক্স, এমিনো এসিড, ওমেগা-৩ ও অন্যান্য ফ্যাটি এসিড ইত্যাদি। মস্তিষ্কের জন্য উপকারী এই উপাদান গুলো সরবরাহ করতে আলু ভূমিকা রাখে। ফলে আলু খেলে মস্তিষ্কের কার্যক্রম স্বাভাবিক ও সচল থাকে।
ত্বক ভালো রাখতে

আলুতে আছে ত্বকের জন্য উপকারী প্রচুর ভিটামিন। আলুতে ভিটামিন সি, বি কমপ্লেক্স, পটাশিয়াম, ম্যাগনেসিয়াম, জিঙ্ক, ফসফরাস ইত্যাদি আছে যেগুলো ত্বকের জন্য জরুরী কিছু উপাদান। এছাড়াও আলু বেটে কিংবা আলুর রস ত্বকে লাগালে বিভিন্ন দাগ, র‍্যাশ ও অন্যান্য ত্বকের সমস্যা থেকে মুক্তি পাওয়া যায়। এছাড়াও রোদে পোড়া ভাবও দূর করে আলুর রস।
Najim U Sharker (Sharif)
Deputy Director (P&D)
Daffodil International University