Author Topic: সপ্তাহে ছয় মিনিট লাফালে যে উপকারিতা পাবেন  (Read 64 times)

Offline sisyphus

  • Sr. Member
  • ****
  • Posts: 372
  • RAM
    • View Profile
বয়স্ক নারীরা প্রতি সপ্তাহে ছয় মিনিটের সাধারণ লাফানোর ব্যায়ামের মাধ্যমে সম্ভবত তাদের অস্টিওপোরোসিস (হাড় ক্ষয়) রোগের ঝুঁকি কমাতে পারেন। ৩ দিন ২ মিনিট করে সপ্তাহে ৬ মিনিট লাফ।

সাম্প্রতিক এক গবেষণায় বলা হয়েছে, কোনো গ্রাউন্ড বা বক্স থেকে লাফ দেয়া পা ও নিতম্বের মাংসপেশিতে পর্যাপ্ত জোর ও চাপ ফেলে, যা বয়স বেড়ে যাওয়ার সঙ্গে সঙ্গে সংঘটিত হাড়ের ক্ষয় প্রতিরোধ করতে পারে।

ম্যানচেস্টার মেট্রোপলিটান ইউনিভার্সিটির ডা. গ্যালিন মন্টগোমারি ৫০ বছর বয়সী ১৪ জন নারীর ওপর এ ব্যায়াম নিয়ে গবেষণা চালান। তিনি বলেন, ‘এই ব্যায়াম আসলেই সহজ এবং নিজের ঘরে সুবিধামতো যেকোনো স্থান থেকে এ ব্যায়াম চর্চা করা যায়। প্রায়ক্ষেত্রে শুধুমাত্র হাঁটা আপনার হাড়ের জন্য পর্যাপ্ত নয় এবং আমরা আশা করছি যে, এ গবেষণার ফলাফলে উদ্বুদ্ধ হয়ে আরো নারী এই ‘হাই ইম্প্যাক্ট ব্যায়াম (সাধারণত অ্যারোবিক ব্যায়াম, যা শরীরে প্রচুর চাপ ফেলে)’ করবেন।

গবেষণায় নারীরা সর্বোত্তম ফল পান ‘কাউন্টার-মুভমেন্ট জাম্প’ থেকে। এ গবেষণায় হাড়ের ঘনত্ব মাপা হয়নি, কিন্তু এ ব্যায়ামের সময় ফ্লোরে অবতরণের প্রভাব ছিল উল্লেখযোগ্য।

ধারণা করা হচ্ছে যে, লাফ দেয়ার ফলে নারীদের মাংসপেশিতে যে চাপ পড়ে তা হাড়কে মজবুত করার জন্য যথেষ্ট। পূর্বের গবেষণায়ও মাংসপেশির ওপর অনুরূপ প্রভাব পাওয়া গেছে। ডা. মন্টগোমারি বলেন, ‘এই ব্যায়ামের উপকারিতা প্রতিবছর হাড়ের খনিজ ঘনত্বের নিট বৃদ্ধি ২ শতাংশের সমান, যা অস্টিওপোরোসিস প্রতিরোধ করতে যথেষ্ট।’

রুষের তুলনায় নারীদের অস্টিওপোরোসিসের আক্রান্ত হওয়ার ঝুঁকি বেশি- বিশেষ করে মেনোপজের কাছাকাছি সময়ে। পঞ্চাশোর্ধ্ব নারীদের মধ্যে অস্টিওপোরোসিস অতি কমন, এ কন্ডিশনের কারণে পঞ্চাশোর্ধ্ব নারীদের প্রায় অর্ধেকেরই একটি হাড় ভেঙে যায়- একারণে এ কন্ডিশনকে ‘ব্রিটল বোন ডিজিজ’ বা ভঙ্গুরপ্রবণ হাড় রোগও বলে।

যদিও ব্যায়াম হাড়কে শক্তিশালী বা মজবুত করে, কিন্তু মধ্য-বয়স্ক নারীরা কাজের চাপ, ছেলেমেয়েদের দেখাশোনা এবং বৃদ্ধ পিতামাতাদের সেবাযত্নের জন্য ব্যায়াম চর্চা করার জন্য তেমন একটা সময় পায় না- তাদের জন্য সপ্তাহে ছয় মিনিটের লাফের ব্যায়াম উপযুক্ত হতে পারে। হাই-ইম্প্যাক্ট ব্যায়ামের মানে হলো হাড়কে একটু বেশি ব্যস্ত থাকতে হবে, যা গ্রোথ কোষকে উদ্দীপ্ত করে।

এ গবেষণাটি জার্নাল অব ইলেক্ট্রোমায়োগ্রাফি অ্যান্ড কিনেশিয়োলজিতে প্রকাশিত হয়েছে। গবেষণায় নারীরা প্রতি চার সেকেন্ডে একটি লাফ দিয়েছেন, তারপর দীর্ঘ বিশ্রাম নিয়ে ১৫ সেকেন্ডে একটি লাফ মেরেছেন। গবেষণাটি ধারণা দিচ্ছে যে, প্রতি সপ্তাহে তিন বার করে ৩০টি লাফ অস্টিওপোরোসিস প্রতিরোধে সহায়ক হতে পারে।

ডা. মন্টগোমারি বলেন, ‘৩০টি লাফ দিতে নারীরা ২ মিনিট সময় নিতে পারেন, ১৫টি লাফের পর তারা অল্প বিশ্রাম নিতে পারেন।’ যেসব বয়স্ক লোক তাদের স্বাস্থ্য নিয়ে উদ্বিগ্ন, তাদের কোনো নতুন ব্যায়াম শুরু করার পূর্বে চিকিৎসকের সঙ্গে কথা বলা উচিৎ।

তথ্যসূত্র : ডেইলি মেইল, রাইজিংবিডি
Mr. Rafi Al Mahmud
Sr. Lecturer
Department of Development Studies
Daffodil International University