Women right in ancient religion

Author Topic: Women right in ancient religion  (Read 545 times)

Offline sushmita

  • Faculty
  • Sr. Member
  • *
  • Posts: 461
  • I want to cross myself everyday.
    • View Profile
Women right in ancient religion
« on: March 11, 2013, 01:23:21 PM »
একটা সময় ধর্মব্যবসায়ীরা নারীদের অধিকার হরন করে পুরুষ আধিপত্য প্রতিষ্ঠার জন্য নারীদের ধর্মগ্রন্থ পাঠ বন্ধ করা বন্ধ করে দেয়।অথচ পবিত্র বেদ ধর্মগ্রন্থ পাঠে সকলের সমান অধিকার দেয়।

যথেমাং বাচং কল্যানীমবদানি জনেভ্যঃ।
ব্রহ্ম রাজন্যাভ্যাং শুদ্রায়
...
চার্য্যায় চ স্বীয় চারণায়।।
...

যজুর্বেদ ২৬/২

অনুবাদ-"আমি যেমন সকল মানুষের জন্য কল্যানময় এবং মুক্তি প্রদায়িনী বেদ উপদেশ করিয়াছি ঠিক তেমনি তোমরাও ব্রাহ্মন,ক্ষত্রিয়,বৈশ্য,শুদ্র,নারী-পুরুষ নির্বিশেষে তা কর।

পবিত্র বেদ নারীদেরকেও উপনয়ন করতে বলেছে এবং যজ্ঞ করার অধিকার দিয়েছে। অথচ আজকাল ধর্মব্যবসায়ী গুরু-পান্ডারা তা শুধু ব্রাহ্মন এবং পুরুষদের একচেটিয়া অধিকার করে নিতে চাইছে।

ওঁ শুদ্ধ পুত যোসিত যজ্ঞিয়াইমা ব্রাহ্মনম হস্তেষু প্রপ্রতক সদায়মি।
যত্কাদমা ইদমাভিসিন্চমি বোহামিন্দ্রো মরুত্বন্স দদাতু তন্বে।। ওঁ

অথর্ববেদ ৬.১২২.৫

অনুবাদ-আমার সকল কন্যাগন পবিত্র,ধর্মনিষ্ঠ,সকল ধর্মানুষ্ঠান(যজ্ঞাদি) পালনে যোগ্য।তাঁরা সকলে পবিত্র বেদ মন্ত্র নিষ্ঠার সহিত পাঠ করবে।তাঁদের সকলে বিদ্বান গুরুর নিকট বিদ্যালাভ করবে।ঈশ্বর তাদের নৈবেদ্য গ্রহন করবেন।

অথর্ববেদ এর ব্রহ্মচর্য সুক্তে বলা হয়েছে-

ব্রহ্মচর্যেন কন্যা যুবানং বিন্দুতে পতিম্।

অথর্ববেদ ১১.৫.১৮

অর্থাত্‍ কন্যারাও ব্রহ্মচর্য সেবন দ্বারা পূর্ন বিদ্যা এবং সুশিক্ষা প্রাপ্ত হয়ে প্রাপ্তবয়স্ক হলে নিজ পছন্দের বিদ্বান পতি গ্রহন করিবে।

শ্রৌতসুত্রে বলা হয়েছে-
"ইমং মন্ত্রং পত্নী পঠেত্‍"
অর্থাত্‍ স্ত্রী যজ্ঞে মন্ত্রপাঠ করিবে। যদি বেদাদি শাস্ত্র না পাঠ করে তবে যজ্ঞে স্বরসহিত মন্ত্রোচ্চারন কি করে করবে।

অথর্ববেদ ১২.২.৩১ বলেছে নারীরা যেন সবসময় সম্মানিত এবং দুঃখবিহীন অবস্থা পায়।

অথর্ববেদ ১২.৩.৫২ নারীদেরকে আইন-বিধান প্রনয়নে অংশ নিতে বলেছে

ঋগবেদ ৩.৩১.১ পৈতৃক সম্পত্তিতে নারী ও পুরুষের সমান অধিকার ঘোষনা দিয়েছে। [Book-Mera Dharm by priyavrata vedavachaspati,chap 1,page 21]

যজুর্বেদ ২০.৯ নারীকে রাজ্য শাসন করার যোগ্য ঘোষনা করেছে।

যজুর্বেদ ১৬.৪৪ নারী সেনানী এবং যুদ্ধে নারীর অংশগ্রহনের অনুমতি দিয়েছে।

বেদদ্রষ্টা ঋষিদের মধ্যে ২৭ জন নারী ঋষি রয়েছেন যে দৃষ্টান্ত পৃথিবীর অন্য কোন ধর্মেই নেই।

সুতরাং নারীদের প্রতি যে কোন ধরনের বৈষম্যমুলক আচরন ই বেদ পরিপন্থী।বেদবানী পালনের মাধ্যমে একটি সুন্দর পৃথিবী গড়ে তোলার প্রত্যয় গ্রহন করুন সকলে।
« Last Edit: March 11, 2013, 08:35:22 PM by Badshah Mamun »

Offline sushmita

  • Faculty
  • Sr. Member
  • *
  • Posts: 461
  • I want to cross myself everyday.
    • View Profile
পাবলিক বাসে একটি কমন ঝগড়া,,"সমান অধিকার দাবী করেন ,, তাহলে সংরক্ষিত আসন কেন
একজন নারী বললেন সমান অধিকার অথ্ যদি সমান সিট হয় তবে আপনি কেন একটি বাচ্চা জন্ম দেন না
আমরা ভুলে যাই "অধিকার" শব্দের প্রকৃত আথ্ ,,আমাদের শারিরীক তারতম্য
আমরা শিক্ষিত !!!!!!!!!!

"কোন রনে কত খুন দিল নর,,লেখা আছে ইতিহাসে,
কত নারী দিল সিঁথির সিঁদুর,,লেখা নাই তার পাশে"

নারীর প্রতি সকল বৈষম্যের অবসান ঘটুক..
"শুভ নারী দিবস"
« Last Edit: March 11, 2013, 04:50:47 PM by sushmita »