Entertainment & Discussions > Story, Article & Poetry

জ্যাক ক্যারুয়াক-এর ২০টি হাইকু

(1/1)

Faruq Hushain:
মার্কিন ঔপন্যাসিক, কবি জ্যাক কেরুয়াক (১৯২২-১৯৬৯) বিট প্রজন্মের অন্যতম সঙ্গী। এলেন গিন্সবার্গ, উইলিয়াম এ. বারোজ-এর সঙ্গে বিট প্রজন্মের সাহিত্য ধারাকে তিনি সফল করেছেন। তার লেখার অন্যতম বৈশিষ্ট্য ছিলো সরল ভাষা ভঙ্গি। একদিকে ক্যাথলিক আধ্যাত্মবাদ, অন্যদিকে বৌদ্ধবাদের চর্চা করেছেন তিনি। সমকালের মার্কিন জ্যাজ ও হিপ্পি আন্দোলনের সাথেও জড়িত ছিলেন তিনি। নেশাক্রান্ত জ্যাক কেরুয়াক অত্যধিক পানের কারণে আভ্যন্তরিক রক্তপাতে মারা যান মাত্র ৪৭ বছর বয়সে। জীবিতকালে তিনি ছিলেন আন্ডারগ্রাউন্ড সেলিব্রেটি আর মৃত্যুর পর তার খ্যাতি ছড়িয়ে পড়ে দেশে-বিদেশে। তার বহু লেখাই মৃত্যুর পর প্রকাশিত হয়েছে। সরল ভাষা, গভীর চিন্তা ভঙ্গির কারণে তিনি দ্রুতই পাঠককে আকৃষ্ট করেছেন। জাপানী ধ্রুপদী কাব্যরীতি হাইকুর ক্ষেত্রে জ্যাক কেরুয়াককে একজন আমেরিকান মাস্টার মনে করা হয়। রেজিনা উইনরিখের সম্পাদনায় তার সব হাইকু ‘বুক অব হাইকু’-তে প্রকাশিত হয়েছে। কেরুয়াক জাপানী ১৭ মাত্রার ধ্রুপদী ভঙ্গির প্রচলিত হাইকু লিখেছেন, যেখানে ঋতু বৈচিত্র এবং শেষ লাইনের বৈপরীত্য আছে। আবার তিনি হাইকুর প্রচলিত রীতি ভেঙে একদম মার্কিন আদলের তিন লাইনের কবিতা লিখেছেন, যেখানে হাইকুর নতুন ধারা সৃষ্টি হয়েছে। জ্যাক কেরুয়াকের জন্মদিনে পড়া যাক তার কয়েকটি হাইকু।

১.
দু’জন ভ্রাম্যমাণ বিক্রেতা
একে অপরকে পেরিয়ে যায়
একটা পশ্চিমা সড়কে।

২.
৫০ মাইল দূরে এন.ওয়াই. থেকে
একেবারে একা প্রকৃতিতে
কাঠবিড়ালে খাচ্ছে।

৩.
একটা বেলুন আটকা
গাছের মধ্যে– গোধূলী
সেন্ট্রাল পার্কের চিড়িয়াখানায়।

৪.
একটা কালো ষাঁড়
এবং একটা সাদা পাখি
একসাথে কুলে দাঁড়িয়ে আছে।

৫.
এক বোতল মদ
একজন বিশপ–
সবকিছুই ঈশ্বর।

৬.
রাতের আহার শেষে
থাবা আড়াআড়ি রেখে
বিড়ালটা ধ্যান করে।

৭.
এক দীর্ঘ দ্বীপ
আকাশে
আকাশগঙ্গা।

৮.
মৌমাছি, তুই কেন
আমার দিকে তাকাচ্ছিস?
আমি কি ফুল নাকি?

৯.
বৃষ্টির
স্বাদ
– কেন নতজানু?

১০.
পাখিরা গাইছে
অন্ধকারে
– বাদলা ভোর।

১১.
মৃদু হলুদ
চাঁদ
শান্ত প্রদীপের আলোর বাড়ির উপরে।

১২.
দিবাবসান
পৃষ্ঠা পড়া যায় না এতো অন্ধকারে
এতো ঠাণ্ডা।

১৩.
আমি পারি না
মতলবখানি বুঝতে
বাস্তবতার।

১৪.
দুজন জাপানী বালক
গাইছে
ইঙ্কি ডিঙ্কি পার্লি ভো।

১৫.
সুন্দর বালিকারা দৌঁড়াচ্ছে
লাইব্রেরির সিঁড়ির ধাপে
শর্টস পরে।

১৬.
উইন্ডমিলটি
ওকলোহামা থেকে তাকিয়ে আছে
সব দিকেই।

১৭.
পাখি অকস্মাৎ থেমে গেলো
তার ডালে–
স্ত্রী পাখিটি তার দিকে তাকিয়ে আছে।

১৮.
অর্থহীন! অর্থহীন!
তীব্র বৃষ্টি চলছে
সমুদ্রের দিকে।

১৯.
একটা বসন্তের মশা
এমনকি এটাও জানে না
কেমন করে কামড়াতে হয়!

২০.
শরৎ রাত্রি
বালকটি খেলছে
হাইকু নিয়ে।

Navigation

[0] Message Index

Go to full version