Show Posts

This section allows you to view all posts made by this member. Note that you can only see posts made in areas you currently have access to.


Messages - Al Mahmud Rumman

Pages: 1 ... 3 4 [5] 6 7 ... 11
61
Scholarship / Re: How to write a PhD research proposal 2
« on: November 18, 2020, 01:06:06 AM »
Thanks for sharing!

63
Daffodil Institute of Languages (DIL) / Re: Demand of Foreign Language
« on: November 18, 2020, 01:04:15 AM »
Interesting stats!

64
Journalism & Mass Communication / Re: English Tips for Budding Journalists
« on: November 18, 2020, 01:02:13 AM »
Good tips indeed!

65
Helpful post, thanks!

66
Helpful post! Thank you!

67
Creative Writing / Re: একদিন আমি তুমি হব।
« on: November 16, 2020, 01:19:03 PM »
Nice Write-up

68
Creative Writing / লকডাউন ২০২০ (কবিতা)
« on: November 16, 2020, 01:18:39 PM »
পাশে থেকো, পাশাপাশি নয়,
স্পর্শে ছড়ায় যেন দুঃসময়।

একা থাকো, তবে একলা না,
অবহেলায় মৃত্যু ডেকো না।

খবর নিও, বেঁচে থাকে যে,
মনে মনে মরে আছে নাকি।
করোনা মেরেছে কিছু আর-
বাকিরা দেয় হিসাবকে ফাঁকি।

লাশের গায়ে থাকে না লেখা,
কি দল করতো, মরলো কি করে।
লাশের মিছিল পৃথিবী জুড়ে,
সন্ত্রস্ত মন বারবার যায় মরে।



(লকডাউন ২০২০ – রুম্মান মাহমুদ)

69
Creative Writing / কবিতা
« on: November 16, 2020, 01:17:55 PM »
তোমাকে ঘিরে ধরে মহামারি
অনুজীব-ত্রাসে করো হাহাকার
মানুষ, তুমি তো মরেছো ঢের
নিজের গেলানো বিষে বারবার

তবু কেন এত ভয় অযথা?
গান লেখো, সাধ করো বাঁচবার
হাতে হাত রাখতেও কাঁপছো
নিঃশ্বাসে বিষভয় একাকার।

ফিরে দেখো, যা কিছু হলো আজ-
তোমারই দায়ভার ষোলআনা
বাবার লাশ আজ কাঁধে নাও
আসে তোমারও মৃত্যু পরোয়ানা।



(করোনা – রুম্মান মাহমুদ)

70
Creative Writing / পাপেট (কবিতা)
« on: November 16, 2020, 01:17:14 PM »
তুমি ভালো আছো জানি
মগজ বিক্রির টাকায় লেখালেখি চলে
একদা পড়তাম তোমাকে
তখনো যাও নি চলে নষ্টের দখলে।
এখন অনেক টাকা তোমার
যখন যা বলায় অবিকল তা-ই বলে যাও।
দিনকে রাত করো হামেশা
কলমের কালিতে কত সত্য বানাও!
তুমি জিতে গেছো ভাবো
ভাবো এভাবেই চলে যাবে চিরকাল
মানুষ তো দু'টাকার পাপেট
সয়ে যাবে
  মেনে নিবে
    নুয়ে মাথা
      নেচে যাবে
        যেমনি নাচাও
          যেমনি নাচো
             সকাল বিকাল।

(পাপেট -  রুম্মান মাহমুদ)

71
Creative Writing / সে (কবিতা)
« on: November 16, 2020, 01:16:35 PM »
একটা পাথর নিয়েই বাঁচতে পারে বহুকাল।
পাথর ঘষে সে দাউ দাউ তোলে আনন্দ ঝড়-
যত ঢেউ তুমি দু’হাতে কুড়াও অখিল শ্রাবণ
বিনিময়ে দাও অবহেলা অপমান অকাতর।

ঘৃণা দাও কিছু ভাবো জিতে গেছো খুব এই খেলা।
বোধের আড়ালে থাকুক নেভানো অপরাধবোধ
সে হাসবে খুব যেভাবে হেসেছে সারাটাজীবন,
তাকাবেনা ফিরে, নখে ঠোঁটে জ্বলবেনা প্রতিশোধ।

জীবন দিয়েছে তাকে যথেষ্ট, ফুরাবার নয়।
অপেক্ষা শুধু নিবিড় নিথর মৃত্যুদিনের
যেভাবে পাথর ক্ষয়ে ক্ষয়ে যায় স্বমেহনে
তুমি উড়ে যাও স্বাদ মাখো ঠোঁটে অন্য তৃণের।

(সে – রুম্মান মাহমুদ)

72
Creative Writing / ঝগড়া (কবিতা)
« on: November 16, 2020, 01:15:50 PM »
বিকালের ছায়াটা একদিকে কাত হয়ে এলেই মনে হয় তুমি এসে দাঁড়িয়ে আছো দরজার ওপাশে। রণক্ষেত্র হবে আজ।
কুরুক্ষেত্র হবে। পেঁপে গাছের ছায়াটাকে মনে হয় অবিকল ঝগড়াটে তুমি।
ভাবতে পারো, ঝগড়া আর তোমাকে আলাদা করলে আর কী থাকে?
ঝগড়া নাই মানেই কেঁপে কেঁপে উঠবে না সমুদ্র, তোমার হাত সরে যাবে কোমর থেকে, চুল ঢুকে যাবে খোঁপায়।
পাড়ার ঘাড়ে শ্বাস ফেলবে দমবন্ধ রাত। স্কুলবাড়ির ছেলেরা শিস বাজাবে তৃতীয় বিশ্বযুদ্ধ থেমে গেলো বলে।
ঝগড়া নাই এর পৃথিবীতে তোমাকে ছোট জোনাকি পোকার মতো উড়ে যেতে দেখবো দাদার কবরের কাছে।
দাদা আমি আসার আগেই ফুটে গেছেন ওপারে। তবু শার্লকের বাচ্চাটা তোমাকে চিনতে পারবে ঠিকই।
চিৎকারের বদলে ওই নরম আলো কত ভয়ংকর বুঝে বলবেন শান্ত হও। আমার নিরুপায় আতংক
পাখির মতো উড়ে গিয়ে কাজ জুটিয়ে নিবে কোন উঁচু গাছের ডালে।
এরচেয়ে ভালো এসো ঝগড়া করি চুরমার, উঠানে দাঁড়াও চুল খুলে।
যুদ্ধের শঙ্খে ত্রস্ত হোক দিগ্বিদিক। আরেকটা বোতাম ছিঁড়ে যাক জীবনের।


(ঝগড়া – রুম্মান মাহমুদ)

73
আপনার কবিতারা আমার বোকা মায়ের মতো। নুন আনতে পানতা ফুরানো জীবন।
অনুযোগ চাপা পড়ে যায় সারাদিনের কাজে। ছিঁড়ে যাওয়া শাড়ির পাড়টা দিয়ে মশারি ঝুলছে দেয়ালে।
খসখসে হাত, তবু কি মায়া! পায়ে পানি জমছে, কিডনিতে পাথর। তবু খেটে খেটে নিঃশেষ।
আমি বলি অভ্যাসের জীবন তোমার। মা শুধু হাসে। কেবল কি অভ্যাস!
তবে তো তরকারিতে কখনো নুন কম হতো না। তুই রাগ করে উঠে যেতি না।
মা'র খুব শখ ছিল সমুদ্র দেখার। আপনার কবিতার হাহাকার সমুদ্রের শঙ্খের মতো বাজে।
আমার মা কবিতা বোঝেন না, বাবার বাজার ফেরত সাইকেলের ক্রিং ক্রিং তার জীবনের একমাত্র আনন্দ।
জানি না আপনি আপনার কবিতার মতো কিনা।
আমার খুব ইচ্ছা একদিন আপনি কোন এক কাজকর্মহীন দুপুরবেলা আমাদের বাড়িতে আসবেন।
মায়ের হাতের চালের গুড়োর রুটি খেতে খেতে আপনার সমুদ্র শঙ্খ বাজাবেন।
মা সমুদ্র টের না পেয়ে রাতে খেয়ে যেতে বলবে।
আপনার দীর্ঘশ্বাস সন্ধ্যার আকাশের মতো দূরের পাহাড়চূড়ায় মিলিয়ে যাবে ক্রমশ।

(অভ্যাস - রুম্মান মাহমুদ) 

74
সত্যিই, আল্লাহর উপর ভরসাকারীদের আল্লাহ কখনো নিরাশ করেন না।

75
May all of us know the proper importance of this day.

Pages: 1 ... 3 4 [5] 6 7 ... 11