যে ৫টি খাবার আপনাকে করে তুলবে বুদ্ধিমান ও ব্যক্তিত্ববান!

Author Topic: যে ৫টি খাবার আপনাকে করে তুলবে বুদ্ধিমান ও ব্যক্তিত্ববান!  (Read 365 times)

Offline sadia.ameen

  • Sr. Member
  • ****
  • Posts: 266
  • Test
    • View Profile
কিছু খাদ্য আমাদের শরীরকে বেড়ে উঠতে সাহায্য করা ও শক্তি প্রদানের কাজটাই কেবল করে না, পাশাপাশি মস্তিষ্ককে আরও সক্রিয় এবং স্মৃতিশক্তিকে প্রখর করে তোলে। এইসব খাদ্য আমাদের মনস্তাত্ত্বিক ব্যাপারগুলোকে নিয়ন্ত্রন করে আমাদের ব্যক্তিত্বে দারুণ প্রভাব ফেলে। অবাক হলেন? অবাক হলেও সত্যি যে বিশেষজ্ঞরা এমন খাবারগুলোর একটি তালিকা করেছেন। আসুন দেখে নেই সেই তালিকায় থাকা ৫টি খাবার। যেগুলো আপনাকে আরও বেশি বুদ্ধিমান ও ব্যক্তিত্ববান করে তুলবে।
তৈলাক্ত মাছ

ইদানিং বিভিন্ন কারণে মানুষের মধ্যে দুর্বল স্মৃতিশক্তির সমস্যা বেশি দেখা যায়। প্রতিদিনের কাজের ফাঁকে ছোটোখাটো অনেক ব্যাপারই অনেকে বেমালুম ভুলে বসে থাকেন। যদি তাই হয় তাহলে মনে করে দেখুন আজকে আপনি দুপুরের খাবারে কি খেয়েছিলেন? আসলেই যদি মনে না করতে পারেন তাহলে বাজারে গিয়ে এখুনি কিনে আনুন তৈলাক্ত কিছু মাছ। নিয়ম করে এই তৈলাক্ত মাছ রাখুন আপনার খাবার তালিকায়। স্বাস্থ্য বিশেষজ্ঞরা বলেন, তৈলাক্ত মাছের ওমেগা-৩ ফ্যাটি এসিড মস্তিস্কের জন্য খুবই ভালো। সপ্তাহে ৩ দিন খাবার তালিকায় সামুদ্রিক তৈলাক্ত মাছ রাখলে স্মৃতিশক্তি হারানো সংক্রান্ত রোগের আক্রমণ থেকে রক্ষা পাওয়া যায়।
শাক সবজি

শাক সবজি খাওয়ার কথা বললেই অনেকে ঠোঁট উল্টে ফেলেন। কিন্তু এই শাক সবজিতে লুকিয়ে আছে বুদ্ধিমান হওয়ার অসাধারন উপাদান। গবেষণায় মস্তিস্কের বিকাশে সর্বোত্তম খাদ্যের তালিকায় শাক সব্জিকে স্থান দেয়া হয়েছে। বিভিন্ন ধরনের শাক ও ব্রকোলিতে রয়েছে প্রচুর পরিমাণে অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট যেমন ভিটামিন সি ও বিটা ক্যারোটিন, যা আমাদের মস্তিস্ক ও দেহের জন্য অত্যন্ত জরুরী। এছাড়া শাক সবজিতে রয়েছে ফলেইট যা আমদের মস্তিস্ককে সক্রিয় করে। গবেষকরা বলেন, ফলেইট আমাদের অ্যানালাইটিক্যাল ক্ষমতা বাড়াতে সহায়তা করে। সুতরাং খাদ্য তালিকায় শাক সবজিকে স্থান দিন।
ডিম

বিভিন্ন প্রকার ভিটামিন ও মিনারেলে ভরপুর ডিমের রয়েছে মস্তিস্ককে স্টিমুলেট করার ক্ষমতা। আয়রন, আয়োডিন ও ভিটামিন বি-১২ সমৃদ্ধ ডিম আপনার খাদ্যের একটি নিয়মিত জায়গায় স্থান করে নিলে মস্তিস্কের পাশাপাশি দেহকে রোগ প্রতিরোধী করে তুলবে। ডিমে বিদ্যমান আয়রন রক্তে সাদা রক্ত কোষের ভারসাম্য বজায় রাখে। এই সাদা রক্ত কোষ মস্তিষ্কে অক্সিজেন বহন করে যা আপনাকে সব সময় সতর্ক থাকার ক্ষমতা দেয়। এবং আয়োডিন সমস্যা সমাধানের ক্ষমতা উন্নত করে।
চকলেট

ফ্ল্যাভোনয়েডে ভরপুর চকলেট কাজ করার দক্ষতা ও জ্ঞান ধারন ক্ষমতা বৃদ্ধি করে। বিশেষজ্ঞরা বলেন, মধ্যম পরিমাণে ডার্ক চকোলেট খাওয়া মস্তিস্কের জন্য অত্যন্ত প্রয়োজনীয়। চকলেটের ফ্ল্যাভোনয়েড মস্তিস্কে নতুন নিউরন গঠন করে। নতুন নিউরন নতুন স্মৃতি ধরে রাখে। এই নতুন নিউরন মস্তিস্কে রক্ত প্রবাহ উন্নত করে ও স্মৃতিশক্তি ভালো করে।
গ্রিন টি (সবুজ চা)

আপনি জানেন কি, আমাদের মস্তিস্কের ৮০% তরল দ্বারা গঠিত? আমাদের সব সময় মস্তিস্কের এই তরলের ভারসাম্য বজায় রাখতে হয়। এইজন্য স্বাস্থ্য বিশেষজ্ঞরা দিনে ৮ গ্লাস পানি পানের পরামর্শ দেন। মস্তিস্কের তরলের ভারসাম্য রক্ষায় গ্রিন টি অতি কার্যকরী একটি পানীয়। গবেষকরা বলেন দিনে ১ কাপ গ্রিন টি মস্তিস্কের তরলের ভারসাম্য বজায় রাখে, স্মৃতিশক্তি উন্নত করে ও মস্তিষ্ককে সতর্ক রাখে। গ্রিন টি-স্মৃতিশক্তি বিষণ্ণতা দূর করে প্রাণবন্ত ব্যক্তিত্ব পেতে সহায়তা করে।