বিভিন্ন অপারেটরে ইমারজেন্সি ইন্টারনেট লোন নেয়ার পদ্ধতি

Author Topic: বিভিন্ন অপারেটরে ইমারজেন্সি ইন্টারনেট লোন নেয়ার পদ্ধতি  (Read 70 times)

Offline Rubaiya Hafiz

  • Full Member
  • ***
  • Posts: 103
    • View Profile
প্রিপেইড ব্যবহারকারীদের জন্য ইমারজেন্সি ব্যাল্যান্স এর ব্যবস্থাটি বেশ কাজের। হঠাৎ করে ফোনের ব্যাল্যান্স শেষ হয়ে গেলেও আপনাকে শেষ রক্ষা করবে এই ইমারজেন্সি ব্যালেন্স বা লোন। তবে এখনকার যুগটাই যেহেতু ইন্টারনেটের, তাই বিপদের সময় মোবাইল ডেটা শেষ হয়ে গেলে অনেকেরই হয়তো দম বন্ধ হয়ে যাওয়ার উপক্রম হয়। আর সেই সমস্যা থেকে মুক্তি দিতে প্রায় সব অপারেটরই আপনাকে ইমারজেন্সি ইন্টারনেট ডেটা নেয়ার সুযোগ দিচ্ছে। পরে রিচার্জের মাধ্যমে এই ডেটা লোনের টাকা ফেরত দিয়ে দেয়া যাবে।
গ্রামীণফোন ইমারজেন্সি ডেটা লোন
এক্টিভেশন কোডঃ *১২১*৩১৪১#
ডেটার পরিমাণঃ ৩০ এমবি
মেয়াদঃ ৩ দিন
ব্যাল্যান্স চেকঃ *১২১*১*৪#
পরিশোধঃ ১০ টাকা
যোগ্যতাঃ মূল অ্যাকাউন্টের ব্যালেন্স ৫ টাকার কম হলে এবং ইন্টারনেট ব্যালেন্স ৫ এমবির কম থাকলে এই লোন নিতে পারবেন
বাংলালিংক ইমারজেন্সি ইন্টারনেট ডাটা
এক্টিভেশন কোডঃ *৮৭৫#
ডেটার পরিমাণঃ গ্রাহকের ব্যবহারের উপর নির্ভরশীল। আপনার স্ট্যাটাস জানতে ডায়াল করুন *৮৭৫*০#
মেয়াদঃ অটো দেয়া হবে
ব্যাল্যান্স চেকঃ *১২৪*৫০০#
পরিশোধঃ প্রাপ্ত ইন্টারনেটের সমপরিমাণ অর্থ
যোগ্যতাঃ মূল অ্যাকাউন্টের ব্যালেন্স ১০ টাকা বা এর কম থাকলে। দিনে সর্বোচ্চ একবার
রবি ইমারজেন্সি ইন্টারনেট ডেটা ধার নেয়ার উপায়
এক্টিভেশন কোডঃ  *৮# অথবা *123*003#
ডেটার পরিমাণঃ গ্রাহকের খরচের উপর নির্ভরশীল
মেয়াদঃ অটো পাবেন
ব্যাল্যান্স চেকঃ *৩#
পরিশোধঃ প্রাপ্ত ডেটার পরিমাণের উপর নির্ভর করবে
যোগ্যতাঃ ব্যালেন্স কোনো ব্যাপার না
এয়ারটেল ইমার্জেন্সি ডেটা ধার নেয়ার পদ্ধতি
এক্টিভেশন কোডঃ *১৪১#
ডেটার পরিমাণঃ ৭০ এমবি / ৩০০ এমবি
মেয়াদঃ ৩ দিন
ব্যাল্যান্স চেকঃ *১৪১# অথবা *৩#
পরিশোধঃ ১৪.৪৪ টাকা / ২৫ টাকা
যোগ্যতাঃ ৫ টাকার নিচে থাকতে হবে
টেলিটক ইমার্জেন্সি ডেটা ব্যালেন্স
 টেলিটকে ইমারজেন্সি ইন্টারনেট ব্যালেন্স বা ডেটা লোন নেয়া যায়না।